সংস্করণ: ২.০১

স্বত্ত্ব ২০১৪ - ২০১৭ কালার টকিঙ লিমিটেড

namakkal-fort-india.jpg

ভারত দর্শন ভারতের ঐতিহাসিক নামাক্কল দূর্গ দর্শন

দূর্গটির নামকরণ নিয়ে ভিন্ন ভিন্ন মতভেদ পাওয়া যায়। কথিত আছে এটি মহীসূরের বাঘ নামে পরিচিত টিপু সুলতান নির্মাণ করেছিলেন। কিন্তু দরজায় থাকা হিন্দুদের ভাস্কর্য ও ভিতরে মন্দির থাকায় অনেকে মনে করেন এটি হিন্দু রাজা কর্তৃক নির্মিত হয়েছিল।

চট্টগ্রাম ভেটেরিনারি ও এনিম্যাল সাইন্সেস বিশ্ববিদ্যালয়ের (সিভাসু) ১৫তম ব্যাচের ভেটেরিনারি মেডিসিন অনুষদের শিক্ষার্থীরা ভারতের তামিল্লাড়ু প্রদেশে অবস্থিত ঐতিহাসিক নামাক্কল দূর্গ দর্শন করেছেন। রবিবার বিকেল ৫ টায় দূর্গটি দর্শনের নিমিত্তে সূউচ্চ চূড়ায় আরোহন করেন।

নামাক্কল দূর্গটি দক্ষিণ ভারতের তামিল্লাড়ু প্রদেশের নামাক্কল জেলার কেন্দ্রে নামাগিরীর চূড়ায় অবস্থিত। এটি ২৪৬ ফুট উঁচু একক পাথরের উপর নির্মিত হয়েছে। সমস্ত দূর্গ এলাকাটি প্রায় দেড় একর ভূমির উপর দাঁড়ানো।

দূর্গটির নামকরণ নিয়ে ভিন্ন ভিন্ন মতভেদ পাওয়া যায়। কথিত আছে এটি মহীসূরের বাঘ নামে পরিচিত টিপু সুলতান নির্মাণ করেছিলেন। কিন্তু দরজায় থাকা হিন্দুদের ভাস্কর্য ও ভিতরে মন্দির থাকায় অনেকে মনে করেন এটি হিন্দু রাজা কর্তৃক নির্মিত হয়েছিল। তাছাড়া টিপু সুলতান সরাসরি এটির নির্মাণকে প্রভাবিত করেননি। স্থানীয়দের মতে দূর্গটির নাম মালাইক্কোট। এটি টিপু সুলতানের আমলে থিরান চিন্নামালাইয়ের দ্বারা নির্মিত হয়। পাথরের উপর নির্মিত বলে একে রক ফোর্টও বলেন অনেকে। আবার জানা যায় সপ্তদশ শতকে মাদুরাই নায়েক নির্মাণ করেন। তবে জোড় দিয়ে বলা হয় এটি নির্মিত হয় রামাচন্দ্র নায়েক কর্তৃক। নির্মাণ যেই করুক না কেন বর্তমানে হিন্দু-মুসলিম উভয়েই প্রার্থনার উদ্দেশ্যে সেখানে যাত্রা করেন। এর চূড়ায় বিষ্ণু মন্দিরের ধ্বংশাবশেষ পাওয়া যায়। এতে একটি মাজার ও মসজিদ পাওয়া যায়। তবে কার মাজার তার কোন তথ্য পাওয়া যায়নি। দেয়ালে তামিল লেখা আছে।

১৭৬৯ সালে দূর্গটি মহীসূরের অধীনে ব্রিটিশদের শাসনে ছিল। কিছুদিন পর হায়দার আলী দখলে নেন। কিন্তু ১৭৯২ সালে ব্রিটিশরা পূনরায় দূর্গটি দখল করেন।

ইতিহাস যাই বলুক না কেন দূর্গটি প্রাচীন ঐতিহ্য তুলে ধরতে ঠা্য় দাঁড়িয়ে আছে একথা সন্দেহাতীতভাবে প্রমাণিত।

উল্লেখ্য, সিভাসুর দুইজন শিক্ষক ইমরান হোসেন ও ডাঃ আনোয়ার পারভেজের তত্বাবধানে ১৫তম ব্যাচের ৬৮ জন শিক্ষার্থী ভারতের তামিল্লাড়ু ভেটেরিনারি বিশ্ববিদ্যালয় ও মাদ্রাস ভেটেরিনারি কলেজে ক্লিনিক্যাল ট্রেনিংয়ের  জন্য গত ২৪ মে দেশ ত্যাগ করেন। তারা এখন তামিল্লাড়ু ভেটেরিনারি বিশ্ববিদ্যালয়ে অবস্থান করছেন। আগামী ১৩ জুন থেকে মাদ্রাস ভেটেরিনারি কলেজে প্রশিক্ষণ নিবেন শিক্ষার্থীরা। তারা ভারতে মোট ৪৫ দিন প্রশিক্ষণের সুযোগ পাবেন।

-
লেখক: ইন্টার্ণশীপ শিক্ষার্থী, চট্টগ্রাম ভেটেরিনারি ও এনিম্যাল সাইন্সেস বিশ্ববিদ্যালয় (নামাক্কল, ভারত থেকে)।


এখানে প্রকাশিত প্রতিটি লেখার স্বত্ত্ব ও দায় লেখক কর্তৃক সংরক্ষিত। আমাদের সম্পাদনা পরিষদ প্রতিনিয়ত চেষ্টা করে এখানে যেন নির্ভুল, মৌলিক এবং গ্রহণযোগ্য বিষয়াদি প্রকাশিত হয়। তারপরও সার্বিক চর্চার উন্নয়নে আপনাদের সহযোগীতা একান্ত কাম্য। যদি কোনো নকল লেখা দেখে থাকেন অথবা কোনো বিষয় আপনার কাছে অগ্রহণযোগ্য মনে হয়ে থাকে, অনুগ্রহ করে আমাদের কাছে বিস্তারিত লিখুন।

india, travel, namakkal, fort, history, student, tour, study, politics, heritage